কিভাবে কম্পিউটারের গতি বাড়ানো যায় - কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর উপায় - কম্পিউটারের গতি বৃদ্ধি করার উপায়

আপনি কি কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর উপায় খুঁজছেন। আপনি কি জানেন, যে কিভাবে কম্পিউটারের গতি বাড়ানো যায়। যদি না জানেন তবে সমস্যা নাই। আপনি যদি আমাদের এই পোষ্টটি পড়েন তবে কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর উপায় সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবেন। আমাদের দেখানো এই টিপস গুলো কাজে লাগালে ৫ মিনিটের ভিতরে আপনার কম্পিউটারের গতি অনেক গুন বেড়ে যাবে। চলুন কম্পিউটারের গতি বৃদ্ধি করার উপায় সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেই।

কম্পিউটারের গতি বৃদ্ধি করার সেরা ১০ টি উপায়

এখানে 10 টি টিপস যা তাৎক্ষণিকভাবে আপনার কম্পিউটারের গতি এবং কর্মক্ষমতা বাড়াতে ব্যবহার করতে পারেন৷ এই সহজ পদক্ষেপগুলি অনুসরণ করে, আপনি আপনার কম্পিউটারের ক্ষমতা সর্বাধিক করতে এবং উন্নত দক্ষতা উপভোগ করতে সক্ষম হবেন। কিভাবে কম্পিউটারের গতি বাড়ানো যায় এবং আপনার কম্পিউটারের মেশিন থেকে সর্বাধিক সুবিধা পেতে শিখতে পড়তে থাকুন!

১. আপনার কম্পিউটার পুনরায় চালু করুন

আপনার কম্পিউটার পুনরায় চালু করা কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর একটি সহজ এবং কার্যকর উপায়। আপনি যখন আপনার কম্পিউটার পুনরায় চালু করবেন, তখন এটি চলমান সমস্ত অ্যাপ্লিকেশন এবং প্রোগ্রাম বন্ধ করে দেবে, স্থান নিচ্ছে এমন কোনো অস্থায়ী ফাইল সাফ করে দেবে এবং অপারেটিং সিস্টেমকে নতুন করে শুরু করার সুযোগ দেবে।

এটি নিশ্চিত করতে সাহায্য করতে পারে যে আপনার কম্পিউটার তার সর্বোত্তম কর্মক্ষমতাতে চলছে। এটি আপনার কম্পিউটারকে একাধিক প্রোগ্রাম এবং অ্যাপ্লিকেশন চালানোর ক্রমাগত চাপ থেকে একটি অত্যন্ত প্রয়োজনীয় বিরতিও দিতে পারে। আপনার কম্পিউটারকে নিয়মিত রিস্টার্ট করা এটিকে দ্রুত এবং আরও দক্ষতার সাথে চলতে সাহায্য করতে পারে।

২. আপডেটের জন্য চেক করুন

আপনার কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর সবচেয়ে সহজ এবং কার্যকর উপায়গুলির মধ্যে একটি হল আপনার অপারেটিং সিস্টেম, সফ্টওয়্যার এবং ড্রাইভারগুলি আপ-টু-ডেট আছে কিনা তা নিশ্চিত করা। পুরানো সিস্টেম এবং সফ্টওয়্যারগুলি উল্লেখযোগ্যভাবে আপনার মেশিনকে ধীর করে দিতে পারে এবং ভাইরাস এবং অন্যান্য দূষিত আক্রমণের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ হতে পারে৷

উইন্ডোজ মেশিনে আপডেটগুলি পরীক্ষা করতে, স্টার্ট > সেটিংস > আপডেট এবং নিরাপত্তা ক্লিক করুন। আপনার কম্পিউটার উইন্ডোজের সর্বশেষ সংস্করণটি চলছে তা নিশ্চিত করতে এখানে আপনি “আপডেটগুলির জন্য পরীক্ষা করুন” নির্বাচন করতে পারেন৷ প্রোগ্রাম এবং ড্রাইভার আপডেটগুলি পরীক্ষা করতে, সংশ্লিষ্ট প্রোগ্রামগুলি খুলুন এবং উপলব্ধ আপডেটগুলি সন্ধান করুন৷

আপনি যদি ম্যাক ব্যবহার করেন, আপনি আপনার স্ক্রিনের উপরের বাম দিকের কোণায় অ্যাপল আইকনে ক্লিক করে, “সফ্টওয়্যার আপডেট” নির্বাচন করে এবং অন-স্ক্রীন নির্দেশাবলী অনুসরণ করে আপডেটগুলি পরীক্ষা করতে পারেন। এটি আপনাকে আপনার OS এবং অন্য যেকোনো সফ্টওয়্যার আপ-টু-ডেট রাখতে সাহায্য করবে।

আপডেটগুলি পরীক্ষা করার জন্য কয়েক মিনিট সময় নিয়ে, আপনি উল্লেখযোগ্যভাবে আপনার কম্পিউটারের গতি এবং নিরাপত্তা উন্নত করতে পারেন৷

৩. অব্যবহৃত প্রোগ্রাম আনইনস্টল

আপনার কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর সবচেয়ে সহজ উপায়গুলির মধ্যে একটি হল অপ্রয়োজনীয় স্থান নিচ্ছে এমন কোনো অব্যবহৃত প্রোগ্রাম আনইনস্টল করা। অব্যবহৃত প্রোগ্রামগুলি শুধুমাত্র আপনার সিস্টেমকে ধীর করে দেয় না, তবে তারা আপনার মেশিনকে দুর্বলতা এবং শোষণের জন্য উন্মুক্ত করে সম্ভাব্য নিরাপত্তা ঝুঁকিও উপস্থাপন করতে পারে।

অব্যবহৃত প্রোগ্রাম আনইনস্টল শুরু করতে, আপনার স্টার্ট মেনু খুলুন, কন্ট্রোল প্যানেল নির্বাচন করুন, তারপর “একটি প্রোগ্রাম আনইনস্টল করুন” নির্বাচন করুন। তারপরে আপনি প্রোগ্রামগুলির তালিকার মাধ্যমে ব্রাউজ করতে পারেন এবং আপনি যেগুলি ব্যবহার করেন না তা সরিয়ে ফেলতে পারেন।

আপনি যদি নিশ্চিত না হন যে আপনার একটি নির্দিষ্ট প্রোগ্রামের প্রয়োজন আছে কি না, আপনি এটি ইন্টারনেটে দেখতে পারেন যে এটি আপনার সিস্টেমে সমস্যা সৃষ্টি করছে কিনা তা দেখতে।

অতিরিক্তভাবে, আপনি অবাঞ্ছিত প্রোগ্রামগুলির জন্য স্ক্যান এবং আনইনস্টল করতে একটি তৃতীয় পক্ষের ইউটিলিটি ব্যবহার করতে পারেন। CCleaner হল এমন একটি উদাহরণ যা জাঙ্ক ফাইলগুলি পরিষ্কার করতে এবং সিস্টেমের কর্মক্ষমতা অপ্টিমাইজ করতে সাহায্য করতে পারে।

অব্যবহৃত প্রোগ্রামগুলি আনইনস্টল করে, আপনি আরও মেমরি এবং প্রক্রিয়াকরণ শক্তি খালি করতে পারেন, যার ফলে আরও ভাল কর্মক্ষমতা এবং একটি সামগ্রিক দ্রুত কম্পিউটার।

৪. আপনার ডেস্কটপ পরিষ্কার করুন

কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর সবচেয়ে সহজ এবং সবচেয়ে কার্যকর উপায় হল আপনার ডেস্কটপ পরিষ্কার করা। অনেকগুলি ফাইল এবং ফোল্ডার সহ একটি বিশৃঙ্খল ডেস্কটপ আপনার কম্পিউটারকে ধীর করে দিতে পারে কারণ এটি আপনার প্রয়োজনীয় প্রোগ্রাম বা ফাইল খুঁজে পেতে বেশি সময় নেয়।

আপনার ডেস্কটপ পরিষ্কার করতে, আপনার আর প্রয়োজন নেই বা ব্যবহার করতে হবে না এমন কোনো ফাইল বা প্রোগ্রাম মুছে দিয়ে শুরু করুন। তারপরে, ফাইলগুলি সংরক্ষণ করার জন্য আলাদা ফোল্ডার তৈরি করুন, যেমন “ডকুমেন্টস”, “ভিডিও”, এবং “ইমেজ”। এইভাবে, আপনি আপনার সমস্ত ফাইল এক জায়গায় সংগঠিত রাখতে পারেন এবং যখন আপনার প্রয়োজন হয় তখন সেগুলি খুঁজে পাওয়া সহজ করে তুলতে পারেন৷

অবশেষে, আপনার সেটিংসে ডিস্ক স্টোরেজ তথ্য চেক করে আপনার হার্ড ড্রাইভে পর্যাপ্ত ফাঁকা জায়গা আছে তা নিশ্চিত করুন। আপনার ডেস্কটপের কিছু বিশৃঙ্খলা দূর করা আপনার কম্পিউটারের গতিতে একটি বড় পার্থক্য আনতে পারে।

৫. অস্থায়ী ফাইল মুছুন

আপনার কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর সবচেয়ে কার্যকর উপায়গুলির মধ্যে একটি হল অস্থায়ী ফাইলগুলি মুছে ফেলা। অস্থায়ী ফাইলগুলি তৈরি হয় যখন একটি প্রোগ্রাম বা অ্যাপ্লিকেশন চলমান থাকে এবং প্রোগ্রামটি বন্ধ হয়ে গেলে মুছে ফেলা হয়। যদি মুছে ফেলা না হয়, এই অস্থায়ী ফাইলগুলি সময়ের সাথে সাথে আপনার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা কমিয়ে দিতে পারে।

এই অস্থায়ী ফাইলগুলি মুছতে, স্টার্ট মেনু খুলুন এবং অনুসন্ধান বারে “ডিস্ক পরিষ্কার” টাইপ করুন। একবার ডিস্ক ক্লিনআপ চালু হলে, আপনি যে ড্রাইভটি পরিষ্কার করতে চান তা নির্বাচন করুন এবং “ঠিক আছে” ক্লিক করুন। তারপরে, “টেম্পোরারি ফাইল” বলে বক্সটি চেক করুন এবং সেগুলি মুছতে “ঠিক আছে” এ ক্লিক করুন। এটি করা আপনার হার্ড ড্রাইভে স্টোরেজ স্পেস খালি করতে এবং আপনার কম্পিউটারের গতি উন্নত করতে সহায়তা করবে।

আপনি যদি এটিকে আরও এক ধাপ এগিয়ে নিতে চান, আপনি একটি প্রোগ্রামও ডাউনলোড করতে পারেন যা বিশেষভাবে অস্থায়ী ফাইল স্ক্যান এবং মুছে ফেলার জন্য ডিজাইন করা হয়েছে, যেমন CCleaner। এটি আপনার কম্পিউটারের মাধ্যমে স্ক্যান করবে এবং মুছে ফেলা যেতে পারে এমন কোনো অপ্রয়োজনীয় ফাইল সনাক্ত করবে।

এটি মেমরি পরিষ্কার করতে এবং আপনার কম্পিউটারে শুধুমাত্র গুরুত্বপূর্ণ ফাইলগুলি সংরক্ষণ করতে সহায়তা করবে৷ আপনার অস্থায়ী ফাইলগুলি মুছে ফেলার জন্য কয়েকটি সহজ পদক্ষেপ গ্রহণ করে, আপনি আপনার কম্পিউটারের গতি উল্লেখযোগ্যভাবে উন্নত করতে পারেন।

৬. ব্যাকগ্রাউন্ডে চলমান প্রোগ্রামগুলি বন্ধ করুন

কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর সবচেয়ে কার্যকর উপায়গুলির মধ্যে একটি হল ব্যাকগ্রাউন্ডে চলমান যেকোনো প্রোগ্রাম বন্ধ করা। অপ্রয়োজনীয় প্রোগ্রাম মেমরি নিতে পারে এবং আপনার কম্পিউটারকে ধীর করে দিতে পারে। ব্যাকগ্রাউন্ডে কোন প্রোগ্রাম চলছে তা পরীক্ষা করতে, টাস্ক ম্যানেজার খুলুন।

কিভাবে কম্পিউটারের গতি বাড়ানো যায় - কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর উপায় - কম্পিউটারের গতি বৃদ্ধি করার উপায়

এটি আপনাকে আপনার কম্পিউটারে চলমান সমস্ত প্রোগ্রাম এবং প্রক্রিয়াগুলির একটি তালিকা দেবে। তারপরে আপনি যে কোনও প্রোগ্রাম নির্বাচন করতে পারেন যা আপনার প্রয়োজন নেই এবং এটি চালানো বন্ধ করতে “এন্ড টাস্ক” এ ক্লিক করুন৷ কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর আরেকটি উপায় হল অপ্রয়োজনীয় ফাইল মুছে ফেলা। সময়ের সাথে সাথে, আমাদের কম্পিউটারে অনেকগুলি ফাইল জমা হয় যেমন পুরানো ফটো এবং ভিডিও যা আমাদের আর প্রয়োজন বা ব্যবহার করে না।

এই ফাইলগুলি মুছে ফেলার মাধ্যমে, আপনি স্থান খালি করতে পারেন এবং আপনার কম্পিউটারকে দ্রুত চালাতে পারেন৷ উপরন্তু, নিয়মিতভাবে আপনার রিসাইকেল বিন সাফ করা আপনার কম্পিউটারের গতি বাড়াতে সাহায্য করতে পারে কারণ অব্যবহৃত ফাইলগুলি মূল্যবান স্টোরেজ স্থান দখল করতে পারে।

৭. আপনার পাওয়ার সেটিংস সামঞ্জস্য করুন

আপনার কম্পিউটারের গতি এবং কর্মক্ষমতা বজায় রাখার জন্য পাওয়ার সেটিংস সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলির মধ্যে একটি। আপনার পাওয়ার সেটিংস সামঞ্জস্য করতে, কেবল ‘কন্ট্রোল প্যানেল’-এ যান এবং ‘সিস্টেম এবং নিরাপত্তা’ তারপর ‘পাওয়ার বিকল্প’ নির্বাচন করুন।

এখান থেকে আপনি আপনার কম্পিউটার ব্যবহার করে শক্তির পরিমাণ সামঞ্জস্য করতে পারেন। আপনি তিনটি ভিন্ন শক্তি পরিকল্পনা থেকে চয়ন করতে পারেন; ব্যালেন্সড, পাওয়ার সেভার এবং হাই পারফরম্যান্স। ব্যালেন্সড হল ডিফল্ট সেটিং এবং এটি আপনার কার্যকলাপের উপর ভিত্তি করে পাওয়ার সেটিংস সামঞ্জস্য করে।

শক্তি সঞ্চয় করার জন্য পাওয়ার সেভার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা সীমিত করে, যখন হাই পারফরম্যান্স গেমিং বা অন্যান্য নিবিড় কাজের জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। আপনার প্রয়োজনের উপর নির্ভর করে, আপনি সেই অনুযায়ী পাওয়ার প্ল্যান সামঞ্জস্য করতে পারেন।

এছাড়াও আপনি ‘চেঞ্জ প্ল্যান সেটিংস’-এ ক্লিক করে এবং উপলব্ধ বিকল্পগুলি পরিবর্তন করে আপনার প্রয়োজন অনুসারে পাওয়ার প্ল্যানগুলি কাস্টমাইজ করতে পারেন। উদাহরণস্বরূপ, আপনি আপনার কম্পিউটারের ডিসপ্লে বন্ধ বা স্লিপ মোডে যাওয়ার সময় পরিবর্তন করতে পারেন, সেইসাথে আপনার স্ক্রিনের উজ্জ্বলতা সামঞ্জস্য করতে পারেন।

আপনার পাওয়ার সেটিংস সামঞ্জস্য করে, আপনি আপনার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা সর্বাধিক করতে পারেন এবং নিশ্চিত করতে পারেন যে এটি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব এবং দক্ষতার সাথে চলে।

৮. একটি ডিস্ক ক্লিনআপ চালান

একটি ডিস্ক পরিষ্কার করা আপনার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা উন্নত করার সবচেয়ে কার্যকর উপায় হতে পারে। ডিস্ক ক্লিনআপ একটি প্রক্রিয়া যা আপনার সিস্টেম থেকে অপ্রয়োজনীয় ফাইলগুলিকে পরিষ্কার করে, ডিস্কের স্থান খালি করে এবং আপনার কম্পিউটারকে দ্রুত এবং মসৃণভাবে চালানোর অনুমতি দেয়।

একটি ডিস্ক ক্লিনআপ চালানোর জন্য, স্টার্ট মেনু খুলুন, অনুসন্ধান বাক্সে “ডিস্ক ক্লিনআপ” টাইপ করুন এবং তালিকায় উপস্থিত হলে প্রোগ্রামটি নির্বাচন করুন। তারপরে আপনি ডিস্কের স্থান খালি করতে মুছে ফেলতে পারেন এমন আইটেমগুলির একটি তালিকা দেখতে পাবেন, যেমন অস্থায়ী ফাইল, সিস্টেম ত্রুটি মেমরি ডাম্প ফাইল, অস্থায়ী ইন্টারনেট ফাইল এবং অন্যান্য। আপনি যে আইটেমগুলি সরাতে চান তা নির্বাচন করুন এবং সেগুলি মুছতে “ঠিক আছে” এ ক্লিক করুন।

একটি ডিস্ক পরিষ্কার করার পরে, আপনার অবিলম্বে আপনার কম্পিউটারের গতি বৃদ্ধি লক্ষ্য করা উচিত। আপনার সিস্টেমটি মসৃণভাবে চলমান রাখার জন্য নিয়মিতভাবে একটি ডিস্ক ক্লিনআপ চালানোর কথা মনে রাখা গুরুত্বপূর্ণ।

৯. আপনার হার্ড ড্রাইভ ডিফ্র্যাগমেন্ট করুন

আপনার কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর অন্যতম সেরা উপায় হল আপনার হার্ড ড্রাইভ ডিফ্র্যাগমেন্ট করা। আপনার হার্ড ড্রাইভকে ডিফ্র্যাগমেন্ট করা আপনার হার্ড ড্রাইভকে পুনর্গঠিত করবে এবং সমস্ত ফাইল এবং প্রোগ্রামকে এমন ক্রমে রাখবে যা আপনার কম্পিউটারকে দ্রুত চালাতে সাহায্য করবে।

এটি আপনার হার্ড ড্রাইভে স্থান খালি করতে এবং এটিকে ওভারলোড হওয়া থেকে রোধ করতে সহায়তা করতে পারে। এটি করার জন্য, আপনি আপনার কম্পিউটারে বিল্ট-ইন ডিস্ক ডিফ্রাগমেন্টার টুল ব্যবহার করতে পারেন।

ডিস্ক ডিফ্রাগমেন্টার অ্যাক্সেস করতে, স্টার্ট মেনু খুলুন এবং অনুসন্ধান বারে “ডিস্ক ডিফ্রাগমেন্টার” টাইপ করুন। সেখান থেকে, আপনি যে ড্রাইভটি ডিফ্র্যাগমেন্ট করতে চান তা নির্বাচন করতে সক্ষম হওয়া উচিত। একবার আপনি ড্রাইভটি বেছে নিলে, প্রক্রিয়াটি শুরু করতে “এখনই ডিফ্র্যাগমেন্ট” বোতামে ক্লিক করুন।

ডিফ্র্যাগমেন্টেশন শেষ হতে কিছু সময় লাগবে, তাই আপনি আপনার কম্পিউটারটি চলাকালীন একা ছেড়ে যেতে চাইতে পারেন। একবার এটি হয়ে গেলে, আপনার কম্পিউটারটি আগের চেয়ে দ্রুত এবং আরও দক্ষ হওয়া উচিত।

১০. আরও RAM যোগ করুন

আপনার কম্পিউটারে আরও RAM যোগ করা এর গতি বাড়ানোর সবচেয়ে কার্যকর উপায়গুলির মধ্যে একটি। আপনার যত বেশি RAM থাকবে, আপনার কম্পিউটার একবারে তত বেশি কাজ করতে পারবে এবং এটি তত দ্রুত চলবে। আপনার কম্পিউটারের RAM আপগ্রেড করতে, সামঞ্জস্যপূর্ণ RAM মডিউলগুলি কিনুন এবং প্রস্তুতকারকের দেওয়া নির্দেশাবলী অনুসারে সেগুলি ইনস্টল করুন৷ RAM ইনস্টল করার পরে আপনাকে কিছু BIOS সেটিংস সামঞ্জস্য করতে হতে পারে।

একবার আপনি অতিরিক্ত RAM ইনস্টল করার পরে, আপনি আপনার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা একটি লক্ষণীয় উন্নতি দেখতে পাবেন। যদি এটি আপনার সমস্ত সমস্যার সমাধান না করে, তবে আপনার মেশিনের গতি উন্নত করার জন্য আপনি অন্যান্য পদক্ষেপ নিতে পারেন। এই ধরনের একটি পদক্ষেপ হল আপনার হার্ড ড্রাইভে ডিস্কের স্থান খালি করা।

আপনি যদি কিছু সময়ের জন্য অব্যবহৃত ফাইলগুলি সাফ না করে থাকেন তবে আপনার হার্ড ড্রাইভে একটি উল্লেখযোগ্য পরিমাণ স্থান নেওয়া হতে পারে যা ব্যবহার করা হচ্ছে না। ডিস্ক ক্লিনআপ চালান বা আপনার হার্ড ড্রাইভে স্থান নিচ্ছে এমন কোনো অপ্রয়োজনীয় ফাইল বা প্রোগ্রাম মুছুন। এটি আপনার মেশিনকে আরও দ্রুত ডেটা অ্যাক্সেস করার অনুমতি দেবে কারণ মেমরিতে কম জাঙ্ক ডেটা থাকবে।

উপসংহার

এই 10টি ধাপ অনুসরণ করে, আপনি অবিলম্বে আপনার কম্পিউটারের গতি বাড়াতে পারেন। আপনার কম্পিউটার রিস্টার্ট করা, আপডেট চেক করা, অব্যবহৃত প্রোগ্রাম আনইনস্টল করা, আপনার ডেস্কটপ পরিষ্কার করা, অস্থায়ী ফাইল মুছে ফেলা, ব্যাকগ্রাউন্ডে চলমান প্রোগ্রামগুলি বন্ধ করা, আপনার পাওয়ার সেটিংস সামঞ্জস্য করা, একটি ডিস্ক ক্লিনআপ চালানো, আপনার হার্ড ড্রাইভ ডিফ্র্যাগমেন্ট করা এবং আরও RAM যোগ করা সবই সহজ এবং আপনার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা উন্নত করার কার্যকর উপায়।

আপনার কম্পিউটার যাতে সহজে এবং দ্রুত চলে তা নিশ্চিত করতে এই টিপসগুলি মাথায় রাখুন৷

আশা করছি আপনি এখন জানতে পেরেছেন যে কিভাবে কম্পিউটারের গতি বাড়ানো যায়। এছাড়াও কম্পিউটারের গতি বাড়ানোর উপায় আরো আছে। কম্পিউটারের গতি বৃদ্ধি করার উপায় সম্পর্কে আরো জানতে চাইলে কমেন্ট বক্সে জানাবেন। এই ধরণের পোস্ট আরো পেতে আমাদের ওয়েবসাইট নিয়মিত ভিজিট করুন। ধন্যবাদ এতক্ষন আমাদের সাথে থাকার জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *